উবুন্টু শিখি

লিনাক্স সম্পর্কিত আলোচনা
Post Reply
User avatar
অ্যারো
নিয়মিত সদস্য
Posts: 236
Joined: Sat Oct 20, 2007 1:25 pm
রক্তের গ্রুপ: B+
Location: বাংলাদেশ
Contact:

উবুন্টু শিখি

Post by অ্যারো » Wed Apr 02, 2008 8:24 pm

একটি বিশেষ ঘোষনা।
আজ থেকে উবুন্টু শিখি নামে নতুন একটি পোস্ট চালু হল। এখানে উবুন্টু নিয়ে যে কোন সমস্যার উত্তর দিবেন দেশের প্রখ্যাত উবুন্টু এক্সপার্টরা। আপনার সমস্যা নিয়ে আর হিমশিম খাবার দরকার নেই। আমাদের সাথে আছেন প্রখ্যাত উবুন্টুবিদ আলোকিত ভাই। তাকে সহায়তা করবেন মানচুদাদা সহ আরও অনেকে।

আমি নিজেই প্রথমে কয়েকটি প্রশ্ন করছি।
১. উবুন্টুর মাই ডকুমেন্ট ফোল্ডার কোনটি?
২. সি ড্রাইভ বা ডি ড্রাইভ এভাবে অন্যান্য ড্রাইভ চিনবো কিভাবে?
৩. ফাইল সিস্টেম বলতে একটা ফোল্ডার দেখা যায়। এটা কি কাজে লাগে?
৪. উইন্ডোজ নামক ফোল্ডারটিকে আমরা যেমন সমীহ করে চলি। উবুন্টুতে তেমন কোনটিতে কোন পরিবর্তন করা যাবেনা?
৫. ফন্ট ফোল্ডার কোনটি? অর্থাৎ কিভাবে নতুন ফন্ট যেমন ইউনিকোড ফন্টগুলো ইনস্টল করব?
৬. ওপেন অফিসে কিভাবে বাংলা লিখব?
:?
বাঙালি জনসংখ্যায় নয়, মানে ও গুণে হোক প্রথম।

User avatar
আলোকিত
সমন্বয়ক
Posts: 3424
Joined: Wed Sep 19, 2007 10:16 pm
লাইসেন্স: by-nc-nd (Creative Commons)
পছন্দ করি: কেডিই ৪, উবুন্টু, ফায়ারফক্স
Location: ঢাকা, বাংলাদেশ
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by আলোকিত » Wed Apr 02, 2008 9:17 pm

"উবুন্টু শিখি" নামটা কেমন হল ভাই? :s)
যাই হোক, আপনার যা ইচ্ছা :z

আপনার সমস্যাগুলোর যথাসম্ভব সমাধান দেয়ার চেষ্টা করছি...
১। ডকুমেন্ট, মিউজিক, পিকচার ফোল্ডার পাবেন উবুন্টুর Places মেনুতে, এক্সপ্লোরারে ডকুমেন্টের পাথ হল /home/username/Documents

২। আপনি কি উইন্ডোজের পাশাপাশি উবুন্টু ইন্সটল করেছেন নাকি একটা হার্ডডিস্কে আলাদাভাবে ইন্সটল করেছেন?
যাহোক আমি ধরে নিচ্ছি উইন্ডোজের পাশাপাশি ইন্সটল করেছেন। উইন্ডোজের সকল ফ্যাট/এনটিএফএস পার্টিশন পাবেন উবুন্টুর /media ফোল্ডারে।
এখানে প্রাইমারি হার্ডডিস্কের সর্বপ্রথম পার্টিশনটির নাম হবে sda0... এভাবে পর্যায়ক্রমে sda1/2/3/4 এভাবে পাবেন পার্টিশনগুলো। একাধিক হার্ডডিস্ক থাকলে sdb0/1/2/3 ইত্যাদি নাম হবে।

৩। ফাইল সিস্টেম কোন ফোল্ডার নয়। এটি আপনার লিনাক্স ext3 বা ext2 ড্রাইভ যেটিতে উবুন্টু ইন্সটল করা আছে। এতেই উবুন্টুর সকল প্রকার তথ্য জমা থাকে।

৪। উবুন্টুতে আপনি ফাইল সিস্টেমের কোন ফাইলই সাধারণ ইউজার হিসাবে পরিবর্তন করতে বা মুছে ফেলতে পারবেন না :C
বিশেষ প্রয়োজনে সিস্টেম ফাইল এডিট করতে আপনাকে রুট ইউজার হতে হবে। তবে বিশেষ প্রয়োজন ছাড়া সিস্টেম ফাইল এডিট করার কোনই দরকার নেই।
আর উবুন্টুতে উইন্ডোজের মত আলাদা রুট ইউজার লগ-ইন নেই। সাধারণ ইউজারের লগ-ইন সেশনেই টার্মিনাল(Applications>> Accessories>> Terminal) থেকে sudo -i টাইপ করে পাসওয়ার্ড দিয়ে রুট ইউজার হতে পারবেন।

৫। উবুন্টুতে ফন্ট ফোল্ডার হচ্ছে fonts:///
এক্সপ্লোরারের লোকেশন বারে fonts:/// লিখে এন্টার চেপে ফন্ট ফোল্ডারে প্রবেশ করতে পারবেন।
কোন ফন্ট ইন্সটল করতে চাইলে প্রথমে fonts:/// ফোল্ডারে ফন্টটি কপি করুন। এরপর টার্মিনাল থেকে

Code: Select all

sudo fc-cache -f -v
কমান্ডটি চালান এবং কমান্ড সম্পন্ন হওয়ার জন্য অপেক্ষা করুন। তাহলেই ফন্টটি ইন্সটল হয়ে যাবে।

৬। শুধুমাত্র ওপেন অফিস নয় সব সফটওয়্যারেই বাংলা লিখতে এবং দেখতে প্রথমে উবুন্টুতে বাংলা সাপোর্ট ইন্সটল করে নিতে হবে। বাংলা সাপোর্ট ইন্সটলের জন্য প্রথমে ইন্টারনেটের সাথে সংযুক্ত হোন। এরপর System>> Administration>> Software Sources এ যান। Ubuntu Softwares ট্যাবে প্রথম চারটি অপশন বাছাই করে দ্বিতীয় ট্যাবে যান। এখানে উভয় অপশন নির্বাচন করে পরের ট্যাবে যান। এখানে Unsupported Updates বাদে অন্যগুলো নির্বাচন করে উইন্ডোটি বন্ধ করে দিন।
এবার System>> Administration>> Language Support এ ক্লিক করুন। ল্যাঙ্গুয়েজ সাপোর্ট আপডেট সংক্রান্ত কোন তথ্য আসলে সেটি ওকে করুন। সফটওয়্যার প্যাকেজ ডাউনলোড ও ইন্সটল হওয়ার জন্য কিছুক্ষণ অপেক্ষা করুন।
ইন্সটল হয়ে গেলে ল্যাঙ্গুয়েজ লিস্ট থেকে বাংলা নির্বাচন করে Apply করুন। কিছুক্ষণের মধ্যেই বাংলা ল্যাঙ্গুয়েজ প্যাক ইন্সটল হয়ে যাবে। ইন্সটল হয়ে গেলে উইন্ডোটি বন্ধ করে দিন।
এবার System>> Preferences>> Keyboard এ যান। Layouts ট্যাব থেকে Add বাটনে ক্লিক করে Layouts ড্রপডাউন মেনু থেকে বাংলাদেশ এবং Variants মেনু থেকে Probhat সিলেক্ট করে এ্যাড বাটনে ক্লিক করুন। U.S. English কে ডিফল্ট লে-আউট হিসাবে নির্বাচন করুন।
এবার Layout Options ট্যাবে যান। Group Shift/Lock Behaviour মেনুটি এক্সপ্যান্ড করে পছন্দমত কীবোর্ড লে-আউট পরিবর্তক শর্টকাট(যেমন অভ্রতে F12) নির্বাচন করুন(আমি নিজে Shift+Capslock ব্যবহার করি কারন এটা অন্য কোন শর্টকাটের সাথে কনফ্লিক্ট করে না :thumb:)। এবার উইন্ডোটি বন্ধ করে দিন।

ব্যস আপনার বাংলা কী-বোর্ড তৈরি! এবার ওপেন অফিস অর্গ চালু করে Shift+Capslock(বা আপনি লেআউট পরিবর্তক হিসাবে যে শর্টকাট নির্বাচন করেছেন) চেপে খাঁটি বাংলায় টাইপ করুন। কোন কীবোর্ড লে-আউট নির্বাচন করা আছে সেটি দেখতে প্যানেলে Keyboard Indicatior(Right Click on a Panel, Click Add to Panel then select keyboard Indication under the utilities Section) এ্যাপ্লেটটি যোগ করে নিতে পারেন।
প্রভাত লে-আউট এর চিত্র...
Image

আর ভয়ের কোন কারন নেই! অভ্রে অভ্যস্থতার কারণে প্রথম প্রথম আমারও প্রভাতে লিখতে সমস্যা হত। এখন উভয় লে-আউটেই সমান দ্রুততার সাথে লিখতে পারি :C

অনেক প্যাঁচাল পারলাম, উপকার হলে জানাবেন :-p

User avatar
অ্যারো
নিয়মিত সদস্য
Posts: 236
Joined: Sat Oct 20, 2007 1:25 pm
রক্তের গ্রুপ: B+
Location: বাংলাদেশ
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by অ্যারো » Wed Apr 02, 2008 10:57 pm

এখনই ট্রাই করছি। উবুন্টুতে ডিফল্ট হিসেবে বাংলা লে আউট ইনস্টলেশনের সময় দেখায়। সেটাই কি বাংলা সাপোর্ট?
বাঙালি জনসংখ্যায় নয়, মানে ও গুণে হোক প্রথম।

স্বপ্নচারী
সমন্বয়ক
Posts: 817
Joined: Sat Sep 15, 2007 10:26 pm
Location: কভেন্ট্রি, ইংল্যান্ড
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by স্বপ্নচারী » Wed Apr 02, 2008 10:58 pm

দু'টো ছোট্ট কারেকশন।

১। /home/USERNAME ই My Documents। এর ভেতরেই ইউজারের সর্বময় ক্ষমতা। এর বাইরে অন্য কোথাও ইউজারের অধিকার নেই।

২। /home/media নয়। /media

এবারে কিছু মৌলিক ধারণা।
লিনাক্সের ফাইলসিস্টেমে ড্রাইভ বলতে কিছু নেই। এখানে ফোল্ডার, ফাইল, ডিভাইস সবকিছু একটা ট্রি-র নিচে থাকে। সেই গাছের গোড়া হচ্ছে / (slash)। এখান থেকেই বিভিন্ন ফোল্ডার, ফাইল, ডিভাইস, পার্টিশন প্রভৃতি মাউন্ট হয়। মাউন্ট মানে সোজা বাংলায় যুক্তকরণ। আর সোজা ইংরেজীতে এটাচ। এখান থেকে বিভিন্ন ফোল্ডার সাজানো থাকে। তার মধ্যে জানা প্রয়োজন কয়েকটা বিশেষ ফোল্ডার। সেগুলো হচ্ছে:

/bin এবং /sbin
এগুলোতে লিনাক্সের মূল কমান্ডগুলো থাকে। যেগুলো সকল লিনাক্স ডিস্ট্রোতে তো একই, বরং অন্যান্য POSIX ওএসেও (যেমন: সোলারিস, বিএসডি, প্রভৃতি) একই।

/boot
এখানে থাকে কম্পিউটার কীভাবে লিনাক্সকে বুট করবে সে সম্পর্কিত ফাইল/ফোল্ডার।

/dev
এখানে থাকে ডিভাইস ফাইলসমূহ। মানে এটাকে হার্ডওয়্যার ড্রাইভার গুদামও বলা যায়।

/etc
এখানে থাকে বিভিন্ন এপ্লিকেশনের কনফিগারেশন ফাইলসমূহ। এটাকে উইন্ডোজ রেজিস্ট্রির সাথে তুলনা করা যায়।

/home
এটাই হচ্ছে ইউজারদের নিজস্ব এলাকা। প্রত্যেক ইউজারের আলাদা ফোল্ডার থাকবে এখানে সেই ইউজারের নামে। যখনই কোন ইউজার লগইন করে মেশিনে, শুধু এখানেই তার যা কিছু করার অধিকার থাকে। এর বাইরে কিছু করতে হলে হয় এডমিন হতে হবে, নয়তো এডমিনের পারমিশন লাগবে।

/lib
এখানে থাকে সফটওয়্যার চালানোর জন্য বিভিন্ন লাইব্রেরি। এটাকে উইন্ডোজের ডিএলএল ফাইলের ভাণ্ডার বলা যেতে পারে।

/media
উবুন্তুতে এক্সটার্নাল সকল ডিভাইস এই ফোল্ডারে মাউন্ট হয়। তবে হার্ডডিস্কে একাধিক পার্টিশন থাকলে সেগুলোও এখানে মাউন্ট হয়। সাধারণত ইনস্টলের সময় যদি পার্টিশনগুলো থাকে উবুন্তু স্বয়ংক্রিয়ভাবে সেগুলো এখানে মাউন্ট করে এবং Places ও ডেস্কটপে শর্টকাট আইকনও তৈরী করে। অন্যান্য প্লাগ এন প্লে ডিভাইস অটোমাউন্ট হয় এবং যথারীতি আইকন দেখায়।

/mnt
এটা আগে /media র কাজ করত। অন্যান্য লিনাক্সে এখনও করে। তবে উবুন্তু এখানে কিছু করে না। /mnt -র চাইতে /media টা বেশি ভালো শোনা, তাই না?

/proc
এখানে কিছু ডাইন্যামিক ফাইল থাকে। যা হার্ডওয়্যার সম্পর্কে তথ্য প্রদান করে। প্রোগ্রামারদের জীবন সহজ করার জন্য এখানে বেশ সহজ কিছু ফাইল পাওয়া যায়। যা পড়তে গেলে ডাইন্যামিক্যালি হার্ডওয়্যার ডাটা দেখায়। যেমন - cat
/proc/cpuinfo কমান্ডটা প্রসেসরের ইনফরমেশন দেখাবে।

/root
লিনাক্সে একজন সর্বময় ক্ষমতার অধিকারী ইউজার থাকে। এই মহামান্য ইউজারের নাম root। এই ইউজার এই কম্পিউটারের যেকোন রকম পরিবর্তন করতে সক্ষম। অর্থাৎ এই কম্পিউটার ধ্বংস করার ক্ষমতাও তার হাতে। সুতরাং উবুন্তুতে এই ইউজারকে
অক্ষম করে রাখা হয়েছে। আর এই ফোল্ডারটা তার হোম ফোল্ডার, ঠিক যেমনটা অন্যান্য ইউজারদের জন্য /home/USERNAME

/sys
নামেই বোঝা যাচ্ছে এটা সিস্টেম ফোল্ডার।

/tmp
এখানে সকল প্রকার টেম্পোরারী ফাইল বা ক্যাশ থাকে।

/usr
এখানে সকল এপ্লিকেশন থাকে। অনেকটা উইন্ডোজের প্রোগ্রাম ফাইলস ফোল্ডারের মত। তবে এখানে আরও অনেক কিছুই থাকে, যেমন প্রোগ্রামারদের জন্য সহায়তাকারী ফাইল, লাইব্রেরী প্রভৃতি। মজার ব্যাপার হলো লিনাক্সের সোর্স কোডও এই ডিরেক্টরিতে পাওয়া যাবে src ফোল্ডারের ভেতর। উইন্ডোজে এই সোর্স ফোল্ডারটা পাবেন মাইক্রোসফটের কোন অফিসের সিন্দুকের ভেতর।

/var
এটাও অনেকটা ক্যাশের মত কাজ করে। তবে এখানে সার্ভারের পাবলিক ফোল্ডারও পাওয়া যায় www তে।

অতএব দেখাই যাচ্ছে, সাধারণ ব্যবহারের জন্য সব ফোল্ডার জানার কোনই প্রয়োজন নেই। প্রত্যেক ব্যবহারকারী তার নিজের হোম ফোল্ডার নিয়ে ব্যস্ত থাকলেই চলবে। অন্য কোথাও নাক গলানোর প্রয়োজন নেই :D

User avatar
আলোকিত
সমন্বয়ক
Posts: 3424
Joined: Wed Sep 19, 2007 10:16 pm
লাইসেন্স: by-nc-nd (Creative Commons)
পছন্দ করি: কেডিই ৪, উবুন্টু, ফায়ারফক্স
Location: ঢাকা, বাংলাদেশ
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by আলোকিত » Wed Apr 02, 2008 11:29 pm

দুঃখিত স্বপ্নচারী ভাই, তারাহুরা করে লিখতে গিয়ে খেয়াল ছিল না। ঠিক করে দিচ্ছি।
@aero: স্বপ্নচারী ভাই আমাদের প্রযুক্তি এবং প্রযুক্তি ফোরামে উবুন্টুর সবচেয়ে অভিজ্ঞ ব্যবহারকারী। উনার কাছেই সেরা সমাধান পাবেন।

User avatar
রুটপয়েন্ট
নিয়মিত সদস্য
Posts: 240
Joined: Mon Jan 14, 2008 3:51 pm
রক্তের গ্রুপ: B+
Location: পদ্মার পাড়
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by রুটপয়েন্ট » Thu Apr 03, 2008 12:40 am

স্বপ্নচারী wrote:দু'টো ছোট্ট কারেকশন।

১। /home/USERNAME ই My Documents। এর ভেতরেই ইউজারের সর্বময় ক্ষমতা। এর বাইরে অন্য কোথাও ইউজারের অধিকার নেই।

২। /home/media নয়। /media

এবারে কিছু মৌলিক ধারণা।
লিনাক্সের ফাইলসিস্টেমে ড্রাইভ বলতে কিছু নেই। এখানে ফোল্ডার, ফাইল, ডিভাইস সবকিছু একটা ট্রি-র নিচে থাকে। সেই গাছের গোড়া হচ্ছে / (slash)। এখান থেকেই বিভিন্ন ফোল্ডার, ফাইল, ডিভাইস, পার্টিশন প্রভৃতি মাউন্ট হয়। মাউন্ট মানে সোজা বাংলায় যুক্তকরণ। আর সোজা ইংরেজীতে এটাচ। এখান থেকে বিভিন্ন ফোল্ডার সাজানো থাকে। তার মধ্যে জানা প্রয়োজন কয়েকটা বিশেষ ফোল্ডার। সেগুলো হচ্ছে:

/bin এবং /sbin
এগুলোতে লিনাক্সের মূল কমান্ডগুলো থাকে। যেগুলো সকল লিনাক্স ডিস্ট্রোতে তো একই, বরং অন্যান্য POSIX ওএসেও (যেমন: সোলারিস, বিএসডি, প্রভৃতি) একই।

/boot
এখানে থাকে কম্পিউটার কীভাবে লিনাক্সকে বুট করবে সে সম্পর্কিত ফাইল/ফোল্ডার।

/dev
এখানে থাকে ডিভাইস ফাইলসমূহ। মানে এটাকে হার্ডওয়্যার ড্রাইভার গুদামও বলা যায়।

/etc
এখানে থাকে বিভিন্ন এপ্লিকেশনের কনফিগারেশন ফাইলসমূহ। এটাকে উইন্ডোজ রেজিস্ট্রির সাথে তুলনা করা যায়।

/home
এটাই হচ্ছে ইউজারদের নিজস্ব এলাকা। প্রত্যেক ইউজারের আলাদা ফোল্ডার থাকবে এখানে সেই ইউজারের নামে। যখনই কোন ইউজার লগইন করে মেশিনে, শুধু এখানেই তার যা কিছু করার অধিকার থাকে। এর বাইরে কিছু করতে হলে হয় এডমিন হতে হবে, নয়তো এডমিনের পারমিশন লাগবে।

/lib
এখানে থাকে সফটওয়্যার চালানোর জন্য বিভিন্ন লাইব্রেরি। এটাকে উইন্ডোজের ডিএলএল ফাইলের ভাণ্ডার বলা যেতে পারে।

/media
উবুন্তুতে এক্সটার্নাল সকল ডিভাইস এই ফোল্ডারে মাউন্ট হয়। তবে হার্ডডিস্কে একাধিক পার্টিশন থাকলে সেগুলোও এখানে মাউন্ট হয়। সাধারণত ইনস্টলের সময় যদি পার্টিশনগুলো থাকে উবুন্তু স্বয়ংক্রিয়ভাবে সেগুলো এখানে মাউন্ট করে এবং Places ও ডেস্কটপে শর্টকাট আইকনও তৈরী করে। অন্যান্য প্লাগ এন প্লে ডিভাইস অটোমাউন্ট হয় এবং যথারীতি আইকন দেখায়।

/mnt
এটা আগে /media র কাজ করত। অন্যান্য লিনাক্সে এখনও করে। তবে উবুন্তু এখানে কিছু করে না। /mnt -র চাইতে /media টা বেশি ভালো শোনা, তাই না?

/proc
এখানে কিছু ডাইন্যামিক ফাইল থাকে। যা হার্ডওয়্যার সম্পর্কে তথ্য প্রদান করে। প্রোগ্রামারদের জীবন সহজ করার জন্য এখানে বেশ সহজ কিছু ফাইল পাওয়া যায়। যা পড়তে গেলে ডাইন্যামিক্যালি হার্ডওয়্যার ডাটা দেখায়। যেমন - cat
/proc/cpuinfo কমান্ডটা প্রসেসরের ইনফরমেশন দেখাবে।

/root
লিনাক্সে একজন সর্বময় ক্ষমতার অধিকারী ইউজার থাকে। এই মহামান্য ইউজারের নাম root। এই ইউজার এই কম্পিউটারের যেকোন রকম পরিবর্তন করতে সক্ষম। অর্থাৎ এই কম্পিউটার ধ্বংস করার ক্ষমতাও তার হাতে। সুতরাং উবুন্তুতে এই ইউজারকে
অক্ষম করে রাখা হয়েছে। আর এই ফোল্ডারটা তার হোম ফোল্ডার, ঠিক যেমনটা অন্যান্য ইউজারদের জন্য /home/USERNAME

/sys
নামেই বোঝা যাচ্ছে এটা সিস্টেম ফোল্ডার।

/tmp
এখানে সকল প্রকার টেম্পোরারী ফাইল বা ক্যাশ থাকে।

/usr
এখানে সকল এপ্লিকেশন থাকে। অনেকটা উইন্ডোজের প্রোগ্রাম ফাইলস ফোল্ডারের মত। তবে এখানে আরও অনেক কিছুই থাকে, যেমন প্রোগ্রামারদের জন্য সহায়তাকারী ফাইল, লাইব্রেরী প্রভৃতি। মজার ব্যাপার হলো লিনাক্সের সোর্স কোডও এই ডিরেক্টরিতে পাওয়া যাবে src ফোল্ডারের ভেতর। উইন্ডোজে এই সোর্স ফোল্ডারটা পাবেন মাইক্রোসফটের কোন অফিসের সিন্দুকের ভেতর।

/var
এটাও অনেকটা ক্যাশের মত কাজ করে। তবে এখানে সার্ভারের পাবলিক ফোল্ডারও পাওয়া যায় www তে।

অতএব দেখাই যাচ্ছে, সাধারণ ব্যবহারের জন্য সব ফোল্ডার জানার কোনই প্রয়োজন নেই। প্রত্যেক ব্যবহারকারী তার নিজের হোম ফোল্ডার নিয়ে ব্যস্ত থাকলেই চলবে। অন্য কোথাও নাক গলানোর প্রয়োজন নেই :D

ডায়মন্ড......
--------------------- আর কিছু +

User avatar
মানচুমাহারা
প্রশাসক
Posts: 2725
Joined: Wed Sep 12, 2007 12:47 pm
রক্তের গ্রুপ: A+
লাইসেন্স: সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
স্ট্যাটাস: আমি হয়তো মানুষ নই, মানুষগুলো অন্যরকম...
পছন্দ করি: যখন যা ভালো লাগে...
Location: মনের রাজ্যে ভবঘুরে
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by মানচুমাহারা » Thu Apr 03, 2008 5:41 am

ধন্যবাদ সবাইকে যারা এই থ্রেডে অংশ নিয়েছেন। আমি চেস্টা করবো লেখার জন্য। স্বপ্নচারী ভাইয়ের অভিজ্ঞতা আমার থেকেও ভালো। আমি নিয়মিত লিনাক্স বা উবুন্টু ইউজার নই। আমার পিসির সমস্যার কারণে এক টানা ব্যবহার করা হয়ে উঠে না। যে যেমন গতকাল সন্ধ্যা থেকে পিসি ডেড ছিলো। আবার ভোর পাঁচটায় উঠে ঠিক করলাম।

অফটপিকঃ গতকাল অফিস থেকে এসে পিসি ঠিক করতে গিয়ে খুব অসুস্থ হয়ে পড়েছিলাম। বার বার উপর নিচ উয়ে একবার ইউপিএস অন করি, একবার মেইন সুইচ অন অফ করি...ইত্যাদি করতে গিয়ে হঠাৎ পিঠের নিচের দিকে মাংস পেশীতে প্রচন্দ টান লাগে। নিজে নিজে যে শুয়ে থাকবো তাও পারছিলাম না। এই মাত্র ভোর পাঁচটায় ঘুম থেকে উঠলাম। মনে হচ্ছে সুস্থ বোধ করছি। আমার জন্য দোয়া করবেন।
আমার টেকব্লগঃ http://manchumahara.com
পিং করতে করতে শিং গজায়ে গেলো তবুও সার্ভার রেসপন্স করলো না

User avatar
আহমাদ মুজতবা
প্রযুক্তি মনষ্ক
Posts: 348
Joined: Tue Sep 25, 2007 3:17 pm
Location: !!! SatanIC WorLD !!!
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by আহমাদ মুজতবা » Thu Apr 03, 2008 4:16 pm

১/ উবুন্টুতে সবচেয়ে ভালো ডাউনলোডার কোনটি??

২/ গায়াচি ইনস্টল করব কি করে??

৩/ ম্যাক কি করে চেইন্জ করবো?

৪/ পেনড্রাইভ ফরম্যাট করব কি করে??

৫/ ওয়াইন ব্যবহার করার জন্য কি হার্ডডিস্কে উইন্ডোজ রাখতে হবে??
রাখতে না হলে আজই উইন্ডোজ ফেলে দিবো।

ুউবুন্টু বেস্ট সমস্যাগুলোর দ্রুত সমাধান দিন

User avatar
আলোকিত
সমন্বয়ক
Posts: 3424
Joined: Wed Sep 19, 2007 10:16 pm
লাইসেন্স: by-nc-nd (Creative Commons)
পছন্দ করি: কেডিই ৪, উবুন্টু, ফায়ারফক্স
Location: ঢাকা, বাংলাদেশ
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by আলোকিত » Thu Apr 03, 2008 5:29 pm

আহমাদ মুজতবা wrote:১/ উবুন্টুতে সবচেয়ে ভালো ডাউনলোডার কোনটি??

২/ গায়াচি ইনস্টল করব কি করে??

৩/ ম্যাক কি করে চেইন্জ করবো?

৪/ পেনড্রাইভ ফরম্যাট করব কি করে??

৫/ ওয়াইন ব্যবহার করার জন্য কি হার্ডডিস্কে উইন্ডোজ রাখতে হবে??
রাখতে না হলে আজই উইন্ডোজ ফেলে দিবো।

ুউবুন্টু বেস্ট সমস্যাগুলোর দ্রুত সমাধান দিন
এর উত্তর স্বপ্নচারী ভাই দিয়েছেন প্রজন্ম ফোরামে...
আমি ড্রিমলিনাক্স ডাউনলোড করছি, আর মাত্র ৮০ মেগাবাইট বাকি। আরও ৪০ মিনিট লাগবে।
এইটাও দারুণ জিনিস মনে হচ্ছে :-?

User avatar
মানচুমাহারা
প্রশাসক
Posts: 2725
Joined: Wed Sep 12, 2007 12:47 pm
রক্তের গ্রুপ: A+
লাইসেন্স: সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
স্ট্যাটাস: আমি হয়তো মানুষ নই, মানুষগুলো অন্যরকম...
পছন্দ করি: যখন যা ভালো লাগে...
Location: মনের রাজ্যে ভবঘুরে
Contact:

Re: উবুন্টু শিখি

Post by মানচুমাহারা » Thu Apr 03, 2008 7:41 pm

আলোকিত বা যেই ড্রিমলিনাক্স ব্যবহার করেন ফোরামে অভিজ্ঞতা জানাবেন আশা করি। মানে উবুন্টু থেকে পার্থক্য কি বা কেন ড্রিম লিনাক্স। আলাদা কি আছে ...।
আমার টেকব্লগঃ http://manchumahara.com
পিং করতে করতে শিং গজায়ে গেলো তবুও সার্ভার রেসপন্স করলো না

Post Reply
[phpBB Debug] PHP Warning: in file [ROOT]/vendor/twig/twig/lib/Twig/Extension/Core.php on line 1275: count(): Parameter must be an array or an object that implements Countable

Return to “লিনাক্স”